Space For Advertisement

নফল আমলের তুলনায় উত্তম স্বভাব বেশি জরুরি

নফল আমলের তুলনায় উত্তম স্বভাব বেশি জরুরি

ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩০ জানুয়ারী ২০১৮ (ফিচার ডেস্ক) : আখলাক আরবি শব্দ। যার অর্থ চরিত্র বা স্বভাব। তবে আখলাক দ্বারা সাধারণত মানুষের দৈনন্দিন কাজকর্মের মধ্য দিয়ে যে আচার-আচরণ ও স্বভাব-চরিত্রের প্রকাশ পায় তাকে বোঝায়। মানবজীবনের উত্তম গুণাবলিকে প্রশংসনীয় চরিত্র বলে। যেমন- ধৈর্য, সততা, দেশপ্রেম ও সমাজসেবা ইত্যাদি।  পক্ষান্তরে মানবজীবনের নিকৃষ্ট চরিত্রকে নিন্দনীয় চরিত্র বলে। যেমন- অহঙ্কার, ঘৃণা, মিথ্যাচার ও সুদ ইত্যাদি।  ইসলামের দৃষ্টিতে আখলাকের গুরুত্ব অনেক। প্রত্যেক নবীই নিজ নিজ জাতিকে উত্তম চরিত্রের শিক্ষা দিয়েছেন। আর উন্নত চরিত্রকে পূর্ণতা দানের জন্য শেষ নবী হজরত মুহাম্মদ (সা.) কে আল্লাহতায়ালা পাঠিয়েছেন।  ইসলাম মনে করে, আমলদার হওয়া একজন মুমিনের প্রশংসিত দিক। সেই সঙ্গে চরিত্রবান হওয়াও একজন মুমিনের জন্যে আবশ্যকীয় দিক। কিন্তু আমলের তুলনায় চরিত্র মানুষের জন্য বেশি জরুরি।  ইসলামি শরিয়তের বিধানাবলীর মৌলিক হুকুম দুই প্রকার। যথা- আদিষ্ট আর নিষিদ্ধ।  কেউ যদি নিষিদ্ধ থেকে বেঁচে থেকে শুধুমাত্র আবশ্যকীয় (ফরজ, ওয়াজিব, সুন্নত) আদিষ্ট বিষয়গুলো আদায় করে, তবে তার জান্নাতে যাওয়ার নিশ্চয়তা দিচ্ছেন আল্লাহ ও রাসূল (সা.)।  তবে আবশ্যকীয় বিষয়ের বাইরেও রয়েছে আদিষ্ট বেশ কিছু বিষয়। যেগুলো পালনের ক্ষেত্রে উৎসাহ দেওয়া হয়েছে ইসলামে। নফল নামাজ দ্বারা পূরণ করা হবে ফরজের ঘাটতিগুলো, তাসবিহে আমলনামায় বৃদ্ধি পাবে সওয়াবের হিসেব- এমন আরও অনেক ফজিলত ছড়িয়ে-ছিটিয়ে আছে কোরআন-হাদিসে। আর এগুলো সব অতিরিক্ত আমল।  যেমন- হাদিসে নফল নামাজ ও রোজার প্রতি উদ্ধুদ্ধ করে বলা হয়েছে, ‘আল্লাহর কাছে উত্তম নামাজ হলো- হজরত দাউদ (আ.)-এর নামাজ। আর রোজার ক্ষেত্রেও উত্তম হলো- হজরত দাউদ (আ.)-এর রোজা। তিনি প্রথমার্ধ ঘুমাতেন। এরপর এক তৃতীয়াংশ ইবাদতে মগ্ন থাকতেন। অবশিষ্ট এক ষষ্ঠাংশ ঘুমাতেন। আর রোজা রাখতেন একদিন, ভাঙতেন একদিন।’ –সুনানে তিরমিজি: ১১১৯ বোখারি শরিফে (৭০৫৩) বর্ণিত এক হাদিসে বলা হয়েছে, ‘দু’টি বাক্য আল্লাহর কাছে অধিক পছন্দনীয়। বাক্যদ্বয় জবানে হাল, পরিমাপকে ভারী। (বাক্য দু’টি হলো) সুবহানাল্লাহি ওয়া বিহামদিহি সুবহানাল্লাহিল আজিম।’


সংশ্লিষ্ট আরও খবর

সর্বশেষ খবর

Today's Visitor