Space For Advertisement

কবিতা

কবিতা

"নিরুপায় প্রতিবাদ"

পাপিয়া আক্তার

গাঢ় নীল বিষে ছড়িয়েছে হৃদয়ের প্রান্তর,
বেদনার বিষাক্ত চাদরে ঢেকে গেছে অন্তর।
নির্ঘুম রাতের প্রভাতের তীরে এসে গুমরে মরে নিষ্প্রেম জীবন,
নিদারুন যন্ত্রনায় ঝড়ে পরা ক'ফোটা জ্বল আর অবিরত
অকৃপন বেদনারা করে নিত্য হৃদয়ক্ষরন।

বড় বেদনার মতো বেজেছ তুমি আমার প্রানে,
মনযে কেমন করে মনে মনে তা মনই জানে।
অতীতের স্মৃতিরা ভারী করে তোলে আকাশ –
বাতাস ক্ষনে ক্ষনে,
ভেতরটা যন্ত্রনায় ছটফটিয়ে মরে

তবু অভিযোগ সয়ে রয় ব্যাথাতুর প্রানে।
তোমার হৃদয়ের অনুগ্রহ লাভের ব্যর্থতায়
বয়ে বেড়াচ্ছি ঘৃনার জীবন,
তোমার ঘৃনায় সেই ক্ষমতা নেই
যা তোমার প্রতি আমার ভালবাসাকে করে কার্পন।

দুমড়ে মুচড়ে হৃদয়টাকে চূর্ন-বিচূর্ন করে দিয়েছে
তোমার নিষ্ঠুর করাঘাত,
আকাশ ভাঙা চিৎকারে আজ বেজে উঠেছে
আমার দেয়ালে পিঠ ঠেকে যাওয়া নিরুপায় প্রতিবাদ
"ভালবাসায় আমি হারবোনা,
এ পরাজয় মানবোনা,
তোমার এ হাত ধরেছি আমি,
মরন এলেও ছারবোনা।


শ্রাবন ঝড়ে-
পাপিয়া আক্তার
ঝড় ঝড় শ্রাবন ঝড়ে আমার নয়নও বাতায়নে।
অঝোড় ধারায় শ্রাবন ঝড়ালে আমরও হৃদয় গগনে।
শ্রাবন ঢলে নামে মনের বৃষ্টিস্নাত আজি
এই রাতে।
মনো মোর অশ্রু ঝড়ায় ঘন ঘোড় বরিষনে।
হৃদমাঝটা থরথরিয়ে কাপেঁ গোপনও বেদনাতে।
এ বেদনা তবু সহি হাসি মুখে নিজেরে লুকায়ে রেখে।
হৃদয়ে হতে হৃদয়ে একটুকু উচ্ছাস তুমি কিগো তোমার হৃদয়ে পেলে না?
শ্রাবনের অভ্রপানে চেয়ে আখিঁতে বারি জমবে আর কতকাল?
বুঝো নাকো তুমি!
আমিযে তোমাকেই খুজে ফিরি
"শুন্য থেকে মহাকাল"।
খুলে রেখেছি আজ তপ্ত হৃদয়ও গগন
শ্রাবন তুমি ঝড়ে পরো এই বর্ষা ক্ষনে।
ছুয়ে যাও একটিবার হৃদয় তোমারও উষ্ণ হাওয়ায়।
প্রেমোময় চিত্তে জড়াবো তোমায় বৃষ্টির জ্বলে
গেঁথে থাকো যেনো হৃদয়ের অন্তে সর্বতলে।
♥উৎসগ "চিরকাল হৃদমাঝারে বাধাঁ রবে যে শ্রাবন" তাহারেই♥♥♥।


সংশ্লিষ্ট আরও খবর

সর্বশেষ খবর

Today's Visitor