বুধবার, ২১শে আগস্ট, ২০১৯ ইং

মন্ত্রীদের উদ্ভট-কাণ্ডজ্ঞানহীন কথাবার্তায় মানুষ হাসাহাসি করে: রিজভী

মুক্তখবর :
মে ১৪, ২০১৯
news-image

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৪ মে ২০১৯ (স্টাফ রিপোর্টার) : ক্ষমতাসীন সরকারের মন্ত্রীদের উদ্দেশে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, চাপাবাজি দিয়ে নিজেদের ব্যর্থতা ঢাকতে পারবেন না। আপনাদের উদ্ভট-অবাস্তব ও কাণ্ডজ্ঞানহীন কথাবার্তায় মানুষ হাসাহাসি করে, আমোদিত হয়। মঙ্গলবার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। রিজভী বলেন, দেশে কর্মসংস্থানের অভাবে চাকরির জন্য জীবনবাজি রেখে ইতালি পাড়ি দিতে গিয়ে ভূমধ্যসাগরে ডুবে মারা গেছেন আমাদের ৩৭ হতভাগ্য ভাই। এর আগেও মালেয়শিয়াসহ ইউরোপীয় দেশগুলোতে অবৈধ পন্থায় প্রবেশ করতে গিয়ে প্রাণহানি ঘটেছে অনেক বাংলাদেশি যুবকের।

তিনি বলেন, মিডনাইট সরকারের বিনাভোটের মন্ত্রীরা কেউ বাংলাদেশকে কানাডা-স্পেনের সঙ্গে তুলনা করছেন, কেউ প্যারিস-লসঅ্যাঞ্জেলেস-সিঙ্গাপুরকে ছাড়িয়ে যাওয়ার কথা বলছেন।

‘আবার নির্লজ্জের মতো এই সরকারের মন্ত্রীরা বলছেন, সুইজারল্যান্ডের মন্ত্রী নাকি প্রধানমন্ত্রীর কাছে এক টুকরো বাংলাদেশ চায়, আবার বেলজিয়াম নাকি বাংলাদেশ মডেলে চলতে চায়!’

বিএনপির এ নেতা বলেন, জনগণের ভোট ছাড়াই জোর করে জনগণের ঘাড়ে চড়ে বসা এই মিডনাইট ভোটের সরকার দেশকে লুটপাট করে অর্থনীতিকে ফাঁপাফোকলা করে দিচ্ছে। বাড়ছে বেকারত্ব।

ক্ষমতাসীন দলের ক্যাডার, অনুগত আইন প্রয়োগকারী সংস্থা ও প্রশাসনের জুলুম ও অব্যবস্থাপনায় দিনকে দিন বাংলাদেশ বসবাসের অযোগ্য হচ্ছে বলে মন্তব্য করেন রিজভী।

তিনি বলেন, পরিসংখ্যান ব্যুরোর হিসাবেই ৪ কোটি ৮২ লাখ ৮০ হাজার কর্মক্ষম মানুষ বেকার। যুবসমাজের কর্মসংস্থান সৃষ্টির কোনো বাস্তবসম্মত সরকারি পদক্ষেপ নেই। যুবশক্তি আজ পথহারা। তাই হতাশায় নিমজ্জিত তরুণদের মধ্যে মাদকাশক্তির প্রবণতা বাড়ছে। নিরাপত্তা আর কাজের অভাবে দেশ ছেড়ে গিয়ে সাগরে সলিল সমাধি ঘটছে টগবগে তরুণদের।

রিজভী আরও বলেন, দেশ ছাড়তে গিয়ে সাগরে মৃত্যুর খবর প্রায়ই আসছে, কিন্তু সরকার নির্বিকার। মিথ্যা প্রপাগান্ডার জোয়ারে ভাসছে এ অন্ধকারের সরকার।

তিনি বলেন, এক দশক আগে আওয়ামী লীগ সরকার বলেছিল, ঘরে ঘরে চাকরি দেবে। ১০ টাকা সের চাল খাওয়াবে। কিন্তু চাকরি না হোক, মানুষ তো চায় কাজ। সরকার দেশে কর্মসংস্থান করতে পারে না, কিন্তু বেসামাল মন্ত্রীরা উন্নয়নের কল্পিত গল্প শোনায়, কৃত্রিম জিডিপি ও প্রবৃদ্ধির গল্প বানায়।

‘তাদের তথাকথিত উন্নয়নের জোয়ারে ভেসে ভূমধ্যসাগরে ডুবে মরল হতভাগ্য ৩৭ বাংলাদেশি। তাদের স্বজনদের শোকের মাতম কে দেখবে?’ প্রশ্ন রাখেন রিজভী।