শনিবার, ১৯শে জুলাই, ২০১৯ ইং

সৌদি আরবে কনসার্ট করছেন না নিকি মিনাজ

মুক্তখবর :
জুলাই ১০, ২০১৯
news-image

ঢাকা, বুধবার, ১০ জুলাই ২০১৯ (বিনোদন ডেস্ক): সমালোচনার মুখে পড়ে সৌদি আরবে আগামী সপ্তাহের নির্ধারিত সফর বাতিল করেছেন ক্যারিবীয় বংশোদ্ভূত র‍্যাপ শিল্পী নিকি মিনাজ। নারী স্বাধীনতা এবং সমকামী ও রূপান্তরিত নারী-পুরুষদের সমর্থনেই এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে জানান নিকি মিনাজ।

জেদ্দায় অনুষ্ঠিতব্য ‘ওয়ার্ল্ড ফেস্ট’-এ নিকির অংশগ্রহণের খবর ছড়িয়ে পড়লে সৌদি আরবের মানবাধিকার সংস্থাগুলো প্রতিবাদে সরব হয়ে ওঠে। এ ছাড়া নিকির খোলামেলা পোশাক ও রগরগে গানের ভাষা সৌদি আরবের মতো চরম রক্ষণশীল দেশের সংস্কৃতির সঙ্গে কতটা মানানসই তা নিয়েও অনেকে প্রশ্ন তোলেন।

সাংস্কৃতিক খাতে বিনিয়োগ করাসহ বিনোদনের বিষয়ে কড়া বিধিনিষেধ শিথিল করার চেষ্টা করছে সৌদি আরব। গত বছরের অক্টোবরে সৌদি দূতাবাসে সাংবাদিক জামাল খাসোগি হত্যাকাণ্ডের পর থেকেই সৌদি আরবে কতটুকু মানবাধিকার চর্চা হয় তা নিয়ে কাটাছেঁড়া চলছে।

এ বছরের মার্চে ১০ জন নারী মানবাধিকার কর্মীকে শাস্তিপ্রদানের পর সৌদি আরবকে আরো সমালোচনার মুখে পড়তে হয়। গণমাধ্যম বিবিসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, এমন পরিস্থিতে সৌদি আরবে সফর নিয়ে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়ে এক বিবৃতিতে নিকি মিনাজ বলেন, ‘খুব সতর্কভাবে পর্যালোচনার পর সিদ্ধান্ত নিলাম জেদ্দা ওয়ার্ল্ড ফেস্টে আমার নির্ধারিত কনসার্টটি নিয়ে আরো এগোব না।’

নিকি আরো বলেন, ‘আসলে বেশি কিছু নয়, সৌদি আরবে বসবাসরত আমার ভক্তদের জন্যই আমি কনসার্টটি করতে চেয়েছিলাম। কিন্তু বিভিন্ন ইস্যু নিয়ে ভালোভাবে জানার পর আমার মনে হয়েছে এবং আমি বিশ্বাস করি নারী অধিকার, রূপান্তরিত নারী-পুরুষ গোষ্ঠি এবং মত প্রকাশের স্বাধীনতার প্রতি আমার সমর্থনের জায়গাটি পরিষ্কার করাটাই আমার কাছে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ।’

গত শুক্রবার এক খোলা চিঠিতে মিনাজকে ১৮ জুলাই অনুষ্ঠিতব্য সাংস্কৃতিক উৎসবে অংশগ্রহণ না করার অনুরোধ জানায় যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক মানবাধিকার ফাউন্ডেশন। ওই চিঠিতে মিনাজকে সৌদি আরবের ‘অর্থ থেকে মুখ ফিরিয়ে’ নিয়ে সেখানে বন্দী থাকা নারী অধিকারকর্মীদের মুক্তির দাবিতে নিজের প্রভাব খাটানোর জন্য বলা হয়।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে জেদ্দায় নিকির কনসার্ট করাকে ভণ্ডামি বলে মন্তব্য করেন অনেকেই। সমকামীদের বিভিন্ন উৎসবে অংশ নেওয়া নিকি সমকামী বিষয়ে কঠোর অবস্থান নেওয়া সৌদি আরবে কনসার্ট করার সিদ্ধান্তের সমালোচনা করেন এসব নেটিজেনবাসী।

অবশ্য সৌদি আরবে কনসার্ট করতে চেয়ে কোনো শিল্পীর সমালোচিত হওয়ার ঘটনা এবারই প্রথম নয়। এ বছরের শুরুতে মানবাধিকার সংস্থাগুলোর আহ্ববান উপেক্ষা করে সৌদি আরবে কনসার্ট করেন জনপ্রীয় মার্কিন গায়িকা মারিয়া ক্যারি। এর আগে গত বছরের ডিসেম্বরে সৌদি আরবে ‘কেবল পুরুষদের জন্য উন্মুক্ত’ এক কনসার্ট করায় সমালোচিত হন র‍্যাপশিল্পী নেলি।