বুধবার, ১৭ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং

ছেলে ঋণের কিস্তি পরিশোধ না করায় মাকে পিটিয়ে হত্যার, আটক ৪

মুক্তখবর :
আগস্ট ১৯, ২০১৯
news-image

ঢাকা, সোমবার, ১৯ আগষ্ট ২০১৯ (নিজস্ব প্রতিনিধি) : ছেলে ঋণের কিস্তি পরিশোধ না করায় মাকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে প্রতিবেশী এক পরিবারের বিরুদ্ধে। ফেনীর ছাগলনাইয়ার উত্তর যশপুর গ্রামে রোববার রাত সাড়ে ৯টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। মধ্যরাতে নিহত খোদেজা বেগমের (৩৫) লাশ মজল হক মিস্ত্রিবাড়ি থেকে উদ্ধার করে মর্গে পাঠায় পুলিশ। পুলিশ হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে প্রতিবেশী শামসুন্নাহার, তার ছেলে মোতালেব, মেয়ে শাহেনা আক্তার এবং নাতি আবদুর রহমানকে আটক করেছে। ছাগলনাইয়া থানার ওসি মেজবাহ উদ্দিন আহমেদ যুগান্তরকে জানান, নিহত খোদেজা বেগমের ছেলে আনোয়ারকে সিএনজিচালিত অটোরিকশা কেনার জন্য ঋণ দেন শামসুন্নাহার। কয়েক কিস্তি পরিশোধ করার পর আনোয়ার বাড়ি ছেড়ে গা ঢাকা দেয়। রোববার রাতে কিস্তির টাকা দেয়া নিয়ে আনোয়ারের মায়ের সঙ্গে ঝগড়া করেন শামসুন্নাহার ও তার ছেলেমেয়েরা। ঝগড়ার একপর্যায়ে শামসুন্নাহার খোদেজা বেগমের তলপেটে লাথি মারেন। এতে ঘটনাস্থলে জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন খোদেজা বেগম। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেয়ার পথে তিনি মারা যান। লাশের সুরতহাল সম্পন্নকারী কর্মকর্তা এসআই মনিরুল ইসলাম জানান, লাশের শরীরে দৃশ্যমান আঘাতের চিহ্ন নেই। ধারণা করা হচ্ছে তলপেটে লাথির কারণে খোদেজা বেগমের মৃত্য হয়েছে। তারপরও ময়নাতদন্তের পর মৃত্যর প্রকৃত কারণ জানা যাবে। এ ঘটনায় নিহত খোদেজা বেগমের রাজমিস্ত্রি স্বামী আবুল কালাম বাদী হয়ে থানায় অভিযোগ দিয়েছেন। মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে থানার ডিউটি অফিসার জানিয়েছেন।