রবিবার,১২ই জুলাই, ২০২০ ইং

নারায়ণগঞ্জে সাত রুটে লঞ্চ চলাচল শুরু

মুক্তখবর :
জুন ১, ২০২০
news-image

ঢাকা, সোমবার, ০১ জুন ২০২০ (স্টাফ রিপোর্টার): করোনা পরিস্থিতিতে টানা দুই মাস বন্ধ থাকার পর চালু হয়েছে নারায়ণগঞ্জ নদী বন্দরে যাত্রীবাহী লঞ্চ চলাচল। রোববার সকাল থেকে স্বাস্থ্যবিধি ও সরকারের নির্দেশনা মেনেই নারায়ণগঞ্জ থেকে চলছে লঞ্চগুলো। তবে ঈদপরবর্তী সময়ে যাত্রীর চাপ কম থাকায় তুলনামূলক যাত্রী অনেকটাই কম ছিল।

সরেজমিন দেখা গেছে, লঞ্চে যাত্রীদের ভাড়া না বাড়ার কারণে বেশ খুশি যাত্রীরা। তবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে কমসংখ্যক যাত্রী নিয়ে লঞ্চ চলাচলের নির্দেশনা কত দিন ধরে রাখা যাবে, সে ব্যাপারে সন্দিহান সবাই।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ) নারায়ণগঞ্জ নদী বন্দরের যুগ্ম পরিচালক মাসুদ কামাল বলেন, লঞ্চে যাত্রীদের নিরাপত্তার জন্য আমরা হ্যান্ডওয়াশ ও থার্মাল স্ক্যানারের ব্যবস্থা করেছি।

এ ছাড়া ডিসইনফেকশন টানেল বসানোর কার্যক্রম চলছে। রোববার নারায়ণগঞ্জ থেকে মুন্সীগঞ্জ, চাঁদপুর ও মতলব-মাছুয়াখালীর মধ্যে লঞ্চ চলাচল শুরু হয়। সকাল ৬টা থেকে বেলা ২টা পর্যন্ত ২২টি লঞ্চ নারায়ণগঞ্জ লঞ্চ টার্মিনাল থেকে ছেড়ে গেছে।

যাত্রী ধারণক্ষমতার চেয়ে কম নিয়েই লঞ্চগুলো চলাচল করছে। এ ছাড়া ঈদপরবর্তী সময়ে সাধারণত নারায়ণগঞ্জ থেকে যাত্রী কম যাতায়াত করে থাকে। যে কারণে যাত্রীদের তেমন চাপও ছিল না। করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে নারায়ণগঞ্জ থেকে চলাচলকারী সব ধরনের যাত্রীবাহী লঞ্চ চলাচল গত ২৪ মার্চ দুপুর ১২টা থেকে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছিল।

নারায়ণগঞ্জ থেকে সাতটি রুটে ৭০টি লঞ্চ চলাচল করত। নারায়ণগঞ্জ থেকে মুন্সীগঞ্জ রুটে প্রতিদিন সকাল থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত ২০ মিনিট পর পর লঞ্চ ছেড়ে যায়। এই রুটে ২৫টি লঞ্চ চলাচল করে। নারায়ণগঞ্জ থেকে চাঁদপুর রুটে ১৫টি, মতলব-মাছুয়াখালী রুটে ১৯, হোমনা-রামচন্দ্রপুর রুটে একটি, ওয়াবদা, সুরেশ্বর-নরিয়ায় (শরীয়তপুর) কয়েকটি লঞ্চ চলাচল করে থাকে। তবে এসব রুটের মধ্যে সন্ধ্যার পর মাত্র দুটি রুটে লঞ্চ চলাচল করে থাকে।