রবিবার,১৮ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

লোহাগড়ায় সাবেক সেনাসদস্যকে হাতুড়িপেটা

মুক্তখবর :
নভেম্বর ৩০, ২০১৯
news-image

ঢাকা, শনিবার, ৩০ নভেম্বর ২০১৯ (নিজস্ব প্রতিনিধি) : নড়াইলের লোহাগড়ায় সাবেক সেনাসদস্য ও দলিল লেখক মাহামুদুল হাসান মান্নান মোল্যাকে (৬৪) কে পূর্বশত্রুতা ও বিয়ের দাওয়াতকে কেন্দ্র করে গ্রামের প্রতিপক্ষ হাতুড়িপেটাসহ রড ও লাঠি দিয়ে বেদম মারপিট ও কুপিয়ে জখম করেছে। শনিবার (৩০ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ৮টা থেকে ৯টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। গ্রামবাসী ও আহত মান্নানের ছেলে মেহেদী জানায়, লোহাগড়ার মল্লিকপুর ইউনিয়নের সোনাদাহ পাঁচুড়িয়া গ্রামের মৃত মোতালেব মোল্যার ছেলে অবসরপ্রাপ্ত সেনাসদস্য বর্তমানে দলিল লেখক মান্নান মোল্যার সাথে ওই গ্রামের পাবেল মোল্যা, পারভেজ মোল্যা, ইকবাল মোল্যাসহ বেশ কয়েকজনের জমিসহ আধিপত্য নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলছিল। গত শুক্রবার মান্নান মোল্যার ইতালিপ্রবাসী ছেলে বনি আমিনের বিবাহ সম্পন্ন হয়। মান্নান মোল্যা প্রতিপক্ষদের বিবাহের দাওয়াত দিলে প্রতিপক্ষরা ওই দাওয়াত ফিরিয়ে দিয়ে অনুষ্ঠানে অনুপস্থিত থাকে। বিবাহ অনুষ্ঠানের পরের দিন শনিবার সকালে বাড়ি থেকে লোহাগড়ায় আসার পথে সোনাদাহ পাঁচুড়িয়া গ্রামের মধ্যে মনাঙ্গীর মুন্সীর বাড়ির পাশে পৌঁছলে পূর্ব থেকে ওঁৎ পেতে থাকা পাবেল মোল্যা, পারভেজ মোল্যা, ইকবাল মোল্যাসহ কয়েকজন মান্নান মোল্যাকে লোহার রড, হাতুড়ি ও লাঠি দিয়ে বেদম মারপিটসহ কুপিয়ে জখম করে। স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে লোহাগড়া হাসপাতালে নিয়ে আসে। অভিযুক্ত পারভেজ মোল্যা, পাবেল মোল্যা, ইকবাল মোল্যার সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করে পাওয়া যায়নি। লোহাগড়া হাসপাতালের জরুরি বিভাগের ডাক্তার শেখ মোহাইমিন কুদ্দুস জিসান জানান, রোগীর শরীরে লোহার রড, হাতুড়ির আঘাতসহ কোপের দাগ রয়েছে। আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। লোহাগড়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আমানুল্লা-আল বারী জানান, পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। আইনি ব্যবস্থা নেব।