বুধবার,২রা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

তিতাসে গরম ডালে দগ্ধ এতিম শিক্ষার্থীর চিকিৎসার খরচের দায়িত্ব নিলেন নুরুন্নবী চেয়ারম্যান

মুক্তখবর :
অক্টোবর ২৯, ২০২০
news-image

মোঃ আলমগীর সরকার, তিতাস কুমিল্লা প্রতিনিধি: কুমিল্লা উত্তর জেলা তিতাস উপজেলার বড় গাজীপুর খালেকিয়া এতিমখানা ও মাদ্রাসার পুড়ে যাওয়া নূরানী শিক্ষার্থী এতিম মোঃ নাছির উদ্দিন চান্দিনার রানিচড়া গ্রামের আবুল খায়েরের ছেলে। নাছির উদ্দিন এর চিকিৎসার জন্য পাশে দাঁড়ালেন কুমিল্লা উত্তর জেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ন আহবায়ক ও তিতাস উপজেলা আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহ্বায়ক এবংবলরামপুর ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ নুরুন্নবী চেয়ারম্যান। গত ২৭ অক্টোবর মঙ্গলবার রাতে খাবারের শেষে ডাল গরম করে টেবিলে রাখার সময় পা পিছলে গরম ডাল নাছিরের গায়ে পরে পেট ও পীঠ মারাত্মকভাবে ঝলসে যায়, বিষয়টি তিতাস উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ পারভেজ হোসেন সরকারের নজরে আসায় কুমিল্লা উত্তর জেলার শ্রেষ্ঠবিদ্যু সাহী বলরামপুর ইউপি চেয়ারম্যান নূর নবীকে নাসিরের সার্বিক খোঁজ-খবর নেওয়ার দায়িত্ব দেন। তাৎক্ষণিকভাবে ভাবে মোঃ নূর নবী চেয়ারম্যান স্হানীয় ওয়ার্ড মেম্বার ও গন্যমান্য ব্যক্তিদের সাথে নিয়ে মাদ্রাসায় ছুটে যান এবং মাদ্রাসার মুহতামিম মুফতী মাহমুদুর রহমান এর সাথে সাক্ষরত করেন। এ সময় মুহতামিম সাহেব বলেন রাতে তেমন বুঝতে পারিনি। সকালে তখন দেখলাম নাছিরের অবস্থা খারাপ সাথে সাথে মাদ্রাসার শিক্ষক ও নাছিরের বড় ভাইয়ের মধ্যেমে তিতাস স্বাস্হ্য কমপ্লেক্স এ প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ঢাকা বর্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়। নূর নবী চেয়ারম্যান মাদ্রাসার মুহতামিম এর উপস্থিতিতে নাছিরের চিকিৎসার যাবতীয় খরচ বহন করার আশ্বাস দেন এবং জরুরি প্রয়োজনে টাকা পাঠানোর কথা বলেন ,এ সময় উপস্থিত ছিলেন স্হানীয় ওয়ার্ড মেম্বার ও গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।