শুক্রবার,৫ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

বাঁশখালী উপজেলায় অভিযান চালিয়ে ইয়াবাসহ আটক ৪

মুক্তখবর :
জানুয়ারি ৯, ২০২১
news-image

ঢাকা, শনিবার, ০৯ জানুয়ারি ২০২১ (নিজস্ব প্রতিনিধি): চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজেলায় অভিযান চালিয়ে ২২ হাজার ৫৯০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেটসহ চারজনকে আটক করেছে চট্টগ্রাম র‌্যাব-৭ । এ সময় ইয়াবা বহনে ব্যবহৃত দুটি মোটরসাইকেলও জব্দ করা হয়। জব্দ হওয়া ইয়াবার মূল্য প্রায় এক কোটি ১৩ লাখ টাকা। শুক্রবার রাত ১০টার দিকে উপজেলার রামদাস মুন্সিরহাট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। আটকরা হলো- চকরিয়ার বেতুয়ার আবু তৈয়বের ছেলে নুরুল মান্নান (৫৬), চকরিয়ার ইদমনি ঘোনার মোজাফফর আহমেদ ছেলে আবদুল আজিজ (৪২), একই এলাকার রুহুল কাদের ছেলে মিজানুর রহমান পারভেজ (৩০) এবং উত্তর নলবিলা মহেশখালী জামাল হোসেনের ছেলে সফিকুল ইসলাম (৩৬)। জানা যায়, চট্টগ্রাম র‌্যাব-৭ এর সদস্যরা গোপন সংবাদ পেয়ে রাত ১০টার দিকে চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজেলার রামদাস মুন্সিরহাটস্থ ব্রিজসংলগ্ন পাকা রাস্তার ওপর একটি বিশেষ চেকপোস্ট স্থাপন করে গাড়ি তল্লাশি শুরু করে। এসময় র‌্যাবের চেকপোস্টের দিকে আসা দুটি মোটরসাইকেলের গতিবিধি সন্দেহজনক মনে হলে র‌্যাব সদস্যরা থামানোর সংকেত দেন। র‌্যাবের চেকপোস্টের সামনে মোটরসাইকেল না থামিয়ে দ্রুত পালানোর চেষ্টাকালে ধাওয়া করে চারজনকে ইয়াবাসহ আটক করা হয়। এ সময় র‌্যাব-৭ আটক আসামিদের ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে তাদের নিজ হেফাজতে থাকা ট্রাভেল ব্যাগের ভিতর সুকৌশলে লুকানো অবস্থায় ২২ হাজার ৫৯০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করে। এ ঘটনায় ইয়াবা পাচারে ব্যবহৃত দুটি মোটরসাইকেলও জব্দ করা হয়। যার নম্বর (ঢাকা মেট্রো-হ- ৩৫-৮৩২৪ এবং ঢাকা মেট্রো-হ- ৪৭-০৪৪৭)। ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন বাঁশখালী থানা ওসি শফিউল কবীর। তিনি বলেন, রাত ১০টার দিকে বাঁশখালী উপজেলার রামদাস মুন্সিরহাট এলাকায় থেকে ইয়াবাসহ চারজনকে আটক করা হয়। পরে চট্টগ্রাম র্যাব-৭ আসামিদের বাঁশখালী থানায় হস্তান্তর করে। আটকদের বিরুদ্ধে বাঁশখালী থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা রুজু করা হয়েছে।