সোমবার,১৯শে এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

ইনানি সৈকতে লাল কাঁকড়াই পর্যটকদের আকর্ষণ

মুক্তখবর :
ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০২১
news-image

ঢাকা, শনিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১ (ফিচার ডেস্ক): কক্সবাজারের ইনানি সমুদ্র সৈকতের পশ্চিমে আন্ধার মানিক মোহনায় চরে খানিক পর পর গর্ত। টুরিস্ট বাইকে করে ঘোরাঘুরির সময় চালক জানালেন, এগুলোই লাল কাঁকড়ার গর্ত। আর ছোট ছোট আলপনা, সেগুলোও তৈরি করেছে ক্ষুদ্র প্রজাতির কাঁকড়া। লাল কাঁকড়ার খোঁজ জানতে চাইলে তিনি জানালেন, দুপুর বা বিকেলে দেখা যাবে। রোদ উঠলে গর্ত থেকে বের হয় এ কাঁকড়া। তবে ঠান্ডায় বের হয় না। আরও কিছুটা সামনে গেলে বাইক চালক বলেনে, আরও সামনে মিলতে পারে লাল কাঁকড়া। খানিকটা এগিয়ে যেতেই চালক দেখালেন ওই যে লাল কাঁকড়া দেখা যাচ্ছে, দৌড়াচ্ছে। এবার বোঝা গেল লাল কাঁকড়ার উপস্থিতি। দূরে লাল কাঁকড়া দৌড়াচ্ছে। কিন্তু শব্দ পেয়ে গর্তের মুখে চলে গেছে কাঁকড়ার দল। ততক্ষণে সহকর্মী আব্দুস শুকুরের ক্যামেরায় বন্দী হলো কয়েকটি কাঁকড়া। সাথে ছিলেন ঢাকার হাসান আল মামুন, সাতক্ষীরার আজহারুল ইসলাম ও কমলগঞ্জের সালাহউদ্দিন শুভ। লাল কাঁকড়ার বৈশিষ্ট্য হলো এরা রোদে বের হয়, শব্দ পেলে ছুটে পালায় নিরাপদে, ঢুকে পড়ে সৈকতের বালিতে, নিজেদের তৈরি করা ঘরে (গর্তে)। আর সৈকতে গর্ত করে থাকা এদের পছন্দ। যখন নিরাপদ আশ্রয় পায় না তখন পা গুটিয়ে বসে যায়। ছবিতে দেখা গেল তীক্ষ্ণ নখের ওপর ভর করে চলে এরা। আর চলার সময় উঁচিয়ে থাকে দু’টি শিং। কক্সবাজারে এসে চিকচিকে সাদা বালির ওপর আট পা দিয়ে কাঁকড়ার দৌড় উপভোগ করেন দর্শনার্থীরা। কক্সবাজারের সমুদ্র সৈকতে দর্শনার্থীর অন্যতম আকর্ষণে পরিণত হয়েছে এ কাঁকড়া।